আধ্যাত্মিক

বড়দিনের আগেই দর্শন মিলবে জগন্নাথ দেবের, স্বাহ্যবিধি মেনে খুলছে পুরীর মন্দির

মহানগর বার্তা ওয়েবডেস্ক: আসছে বড়দিন! তার আগেই খুলে দেওয়া হচ্ছে, পুরীর জগন্নাথ দেবের মন্দির । সূত্রে খবর পাওয়া গেছে, আগামী ২৩ শে ডিসেম্বরে খুলে যাচ্ছে মন্দিরের দরজা । ৩১ শে ডিসেম্বর পর্যন্ত জগন্নাথ দেবের দর্শন করতে সক্ষম হবেন দর্শনার্থীরা। তবে এই মুহূর্তে শুধু পুরীতে বসবাসকারী বাসিন্দাদেরই মন্দিরে প্রবেশের অনুমতি পাওয়া গেছে। গত শনিবার এই বিষয়ে নিয়ে মন্দির কর্তৃপক্ষদের বৈঠকে নেওয়া হয়েছে বেশ কয়েকটি সিদ্ধান্ত। আগামী সপ্তাহে মন্দিরের কর্তৃপক্ষ ছাড়পত্রে ওড়িশা সরকারকে , এই প্রস্তাব পাঠাবে বলে জানিয়েছেন শ্রী জগন্নাথ টেম্পল অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের মুখ্য প্রশাসক কৃষাণ কুমার।

এই করোনার আবহে , গত মার্চ মাস থেকেই দেশের বাকি ধর্মীয় স্থানের মতই বন্ধ হয়ে গিয়েছিল পুরীর মন্দিরও। আনলক পর্বের শুরু হওয়ার পর, আস্তে আস্তে দেশের বাকি মন্দির খুলে গেলেও এই মন্দিরটা বন্ধই ছিল। করোনার কালে অনেক আইনি সমস্যার পর বাতিল হয়ে গিয়েছিল রথযাত্রা। এতসবের পরে গত শনিবারের বৈঠকে কর্তৃপক্ষ সিদ্ধান্ত নিলেন মন্দির খোলা হবে আবার , এবং তা বড়দিনের আগেই। ধাপে ধাপে দর্শনার্থীদের প্রবেশের ছাড়পত্র দেওয়ার পক্ষে সূচিও তৈরি করেছেন তারা—-

• আগামী ২৩ থেকে ৩১শে ডিসেম্বর –শুধুমাত্র পুরীর বাসিন্দারাই মন্দিরে প্রবেশ করতে পারবেন।
• ১ লা ও ২ রা জানুয়ারি – দেবদর্শন বন্ধ থাকবে মন্দিরে।
• ৩ রা জানুয়ারি থেকে সকলের জন্য খুলছে মন্দির। প্রতি সপ্তাহে ৫০০০-এর বেশি দর্শনার্থীদের প্রবেশ নিষিদ্ধ। পরবর্তীকালর পরিস্থিতির উপর তা বাড়ানো বা কমানো হতে পারে।
এছাড়াও জানা গেছে, করোনা পরিস্থিতির মধ্যে জগন্নাথ মন্দির দর্শনের জন্য কয়েকটি নিয়ম মানতে হবে তাদের—–

• কোভিড-১৯ এর প্রধান নিয়ম অর্থাৎ মাস্ক পরা, হাত স্যানিটাইজারের মাধ্যমে পরিষ্কার করা, শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখা ইত্যাদি নিয়ম গুলো মেনে চলতে হবে।

• দর্শনার্থীদের কোভিড রিপোর্ট নেগেটিভ থাকতে হবে। RT-PCR এবং ব়্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্টের রিপোর্টই এক্ষেত্রে গ্রহণীয়।

• জগন্নাথদেবের পুজোয় ফুল এবং প্রদীপ দিয়ে পুজোর ক্ষেত্রে থাকছে নির্দিষ্ট বিধি।

• মন্দিরের বাইরে এবং ভিতরের দর্শনার্থীদের লাইন কেমন ভাবে হবে, তা নতুনভাবে সিদ্ধান্ত নেওয়া হচ্ছে।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close