fff
দেশরাজনীতি

বিজেপি সমর্থিত দ্রৌপদী মুর্মুর জেতার সম্ভাবনা বেশি, রাষ্ট্রপতি ভোট নিয়ে অকপট মমতা

মহানগর বার্তা ওয়েবডেস্কঃ আজ সোজা রথ, কিন্তু উলট পুরাণের সুর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের গলায়।আজ রথের অনুষ্ঠানের ইসকন মন্দিরে উপস্থিত হয়ে তিনি জানিয়ে দিলেন যদি রাষ্ট্রপতি পদপ্রার্থী হিসাবে বিজেপি দ্রৌপদী মুর্মুর নাম আগে জানাতো তাহলে হয়তো তিনি ভাবতেন তাঁর অবস্থান নিয়ে। যদিও তিনি এটাও স্পষ্ট করেছেন যে এখন আর কিছুই করার নেই তাঁর একার পক্ষে। বর্তমানে যা রাজনৈতিক পরিস্থিতি তাতে দ্রৌপদী মুর্মুর জেতা শুধুই সময়ের অপেক্ষা।

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্যোগেই দিল্লীতে প্রথম বিরোধী দলগুলির যৌথ বৈঠক হয়। সেখান থেকেই সতেরোটি বিরোধী দল মিলে সিদ্ধান্ত নেয় বর্ষীয়ান রাজনীতিক যশবন্ত সিনহাকে বিরোধীদের পক্ষ থেকে রাষ্ট্রপতি প্রার্থী করার। তারপরেই বিজেপি ঘোষণা করে দ্রৌপদী মুর্মুকে রাষ্ট্রপতি পদপ্রার্থী হিসাবে। একজন আদিবাসী মহিলাকে রাষ্ট্রপতি প্রার্থী করায় বিরোধী দলগুলি কিছুটা চাপে এবং সংশয়ে। ইতিমধ্যেই ঝাড়খন্ডের হেমন্ত সোরেনের দল জেএমএম দ্রৌপদী মুর্মুকেই সমর্থনের ঘোষণা করেছে।

আজ মমতা ব্যানার্জীর এহেন মন্তব্য নতুন করে জল্পনা উস্কে দিচ্ছে। তিনি আরো জানান আদিবাসীদের নিয়ো সবারই সেন্টিমেন্ট আছে। কিন্তু তিনি একা কিছু আর করতে পারবেন না, যা সিদ্ধান্ত নেবে সতেরোটি দল মিলেই নেবে। তিনি একা আর দায় নিতে চাইছেন না এটা স্পষ্ট। এছাড়াও তিনি বলেন “বৃহত্তর স্বার্থে সহমতের ভিত্তিতে একজন প্রার্থী হলে দেশের মঙ্গল হতো। আমি এখন একা কিছু করতে পারব না। যা সিদ্ধান্ত নেওয়ার ১৭টি দল মিলে নেবে।” অর্থাৎ তিনি বুঝিয়ে দেন যে যশবন্ত সিনহাকে রাষ্ট্রপতি প্রার্থী করার সিদ্ধান্ত সতেরোটি দলের সম্মিলিত সিদ্ধান্ত, তিনি তৃণমূল সুপ্রিমো হিসাবে একা দায়বদ্ধ হবেন না। এখন দেখার বাকি বিরোধী দলগুলি কী অবস্থান নেয়!

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
Close
Close

Adblock Detected

Please Disable your ADBlocker!