দেশ

‘প্যান্ট খুলে যৌনাঙ্গ দেখানো যৌন নির্যাতন নয়’ বম্বে হাইকোর্টের নয়া রায় ছড়াচ্ছে বিতর্ক

মহানগর বার্তা ওয়েবডেস্ক: পোশাকের ওপর থেকে স্তনে জোর করে হাত ধরে রাখলেও সেটি যৌন নিগ্রহের আওতায় পড়ে না বলে রায় দিয়েছেন নাগপুর বেঞ্চার বিচারপতি পুষ্পা গানেদিওয়ালা। এই রায়ের স্থগিতাদেশ সম্প্রতি ঘোষণা করেছে সুপ্রিম কোর্ট।প্যান্ট খুলে যৌনাঙ্গ দেখানো যৌন নির্যাতনের আওতায় পড়বেনা। এই রায়দানের পরই শুরু হয়েছে শোরগোল।

নাগপুর বেঞ্চের বিচারপতি পুষ্পা গানেদিওয়ালা রায় বলেন, ‘কোনও নাবালিকার যৌন নিগ্রহ প্রমাণ করতে গেলে শারীরিক সংস্পর্শ হয়েছে তার প্রমাণ দিতে হবে। অন্যদিকে, জামাকাপড় না খুলে, যদি স্তনে হাত দেওয়া হয় তাহলেও সেটি যৌন নিগ্রহের আওতায় পড়বে না। পকসোর-র ৭ নম্বর ধারা  অনুযায়ী এই রায় দেওয়া হয়েছে। ১২ বছরের একটি কিশোরীর যৌন হেনস্থা নিয়ে শুনানির রায় দিতে গিয়ে এমনই রায় দিয়েছে বম্বে হাইকোর্ট’।

প্রসঙ্গত, ৫০ বছরের ব্যক্তি এক পাঁচ বছরের শিশু কন্যাকে জোর করে ধরে, তার সামনে প্যান্টের জিপ খুলে যৌনাঙ্গ দেখান। এই ঘটনার জেরে সেশন কোর্ট ২৫ হাজার টাকা জরিমানা ও ৫ বছরের কারাদণ্ড দিলেও বম্বে হাইকোর্টের নাগপুর বেঞ্চের বিচারপতি আইনের ব্যাখ্যা দিয়ে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩৫৪ এবং ৩৪২ নম্বর ধারা মোতাবেক ১ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেন অভিযুক্তকে।  পরবর্তীতে বিচারপতি পুষ্পা গানেদিওয়ালা আইনের ব্যাখ্যা দিয়ে বলেন, প্যান্টের জিপ খুলে রাখা অথবা যৌনাঙ্গ প্রদর্শন করা যৌন নির্যাতনের আওতায় পড়ে না। কারণ ত্বকের সঙ্গে সংস্পর্শ হয়নি। তাই এটিকে যৌন হয়রানির আওতায় ধরা যায়না।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
নিজের লেখা নিজে লিখুন
Close
Close