দেশভাইরাল

কুকুরকে গাড়ির সঙ্গে চেন দিয়ে বেঁধে ছোটালেন চিকিৎসক, নৃশংস দৃশ্য রাজস্থানে

মহানগর বার্তা ডেস্ক: ফের একবার রাস্তার কুকুরদের প্রতি নৃশংসতার সাক্ষী থাকল সারা দেশ। রাজস্থানে পথ কুকুরকে গাড়ির পিছনে দড়ি দিয়ে বেঁধে, চলন্ত গাড়ির সঙ্গে কয়েক কিলোমিটার হেঁচড়ে নিয়ে গেলেন এক চিকিৎসক। হাড়হিম সেই ঘটনার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার হতেই নড়েচড়ে বসে প্রশাসন। চিকিৎসকের বিরুদ্ধে পশু নির্যাতনের মামলা দায়ের করা হয়েছে। ডোগ হোম ফাইন্ডেশনের পক্ষ থেকে টুইট করে জানান হয়েছে চিকিৎসকের নাম রজনীশ গালওয়া।

উল্লেখ্য, রবিবার সকালে যোধপুরের বিখ্যাত প্লাস্টিক সার্জন ডাঃ রজনীশ গালওয়া চলন্ত গাড়ির সাথে কুকুরকে বেঁধে, তাকে গাড়ির গতির সাথে পাল্লা দিয়ে ছোটাতে থাকে। এতে কুকুরটি আহত হয় এবং রক্তপাতও ঘটে। কয়েকজন যুবক এই কাণ্ড দেখে গাড়ির সামনে বাইক নিয়ে দাঁড়িয়ে পড়েন। এবং গাড়ি থামিয়ে কুকুরটির দড়ি খুলে দেন।

চিকিৎসক জানান, ‘কুকুরটি তার বাড়ির সামনে রোজ সারারাত ধরে ডাকতে থাকে, যার কারণে তার ঘুমের ব্যাঘাত ঘটে। সেই সঙ্গে কুকুরটি বাড়ির দালান নোংরা করে’। তাই শাস্তি দিতেই তিনি এই পথ বাছেন। যদিও একজন চিকিৎসকের এই যুক্তিতে অবাক হয়ে যান সকলেই।

সোশ্যাল মিডিয়ায় এক ব্যক্তি জানিয়েছেন, চিকিৎসকের বেআক্কেলের জন্য কুকুরটির একটি পা ভেঙে গেছে। পাশাপাশি যোধপুর প্রশাসনের কাছেও তাঁরা চিকিৎসকের বিরুদ্ধে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়ার আর্জি জানিয়েছেন। অনেকে আবার চিকিৎসকের লাইসেন্স বাতিল করার দাবি করেছেন। এক ব্যক্তি লিখেছেন একজন চিকিৎসক কখনই এত নির্দয় হতে পারে না। এটি লজ্জাজনক ঘটনা। পাশাপাশি অনেকেই তাঁকে হৃদয়হীন বলে দাবি করেছেন। সব মিলিয়ে, সাতসকালেই এমন কাণ্ডে তোলপাড় রাজস্থানের যোধপুর।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
নিজের লেখা নিজে লিখুন
Close
Close