ভাইরাল

‘চপে ঢাকা পাড়া’, মুখ্যমন্ত্রীর চপ শিল্পের সমর্থনে কবিতা দেবাংশুর

মহানগর বার্তা ডেস্ক: মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সম্প্রতি নিদান দিয়েছিলেন পুজোয় ঝালমুড়ি- চা বিক্রির। এর আগে তাঁর মুখে উঠে এসেছিল চপ বিক্রির কথাও। যাকে মস্করা করে অনেকেই ‘চপ শিল্প’ বলে থাকেন। ‘শিল্পহীন’ বাংলায় বেকারদের কর্মসংস্থানের প্রশ্নে মুখ্যমন্ত্রীর চা-ঝালমুড়ি-চপ বিক্রি করার পরামর্শ ভালোভাবে নেয়না বিরোধীরা। কিন্তু মুখ্যমন্ত্রীর এমন উপদেশ যে ফেলনা নয় তা বোঝাতে তৎপর থাকতে দেখা যায় ঘাসফুল শিবিরের নেতাদের।

এবার সেই ভূমিকায় অবতীর্ণ হলেন তৃণমূল মুখপাত্র দেবাংশু ভট্টাচার্য। মঙ্গলবার ফেসবুকে একটি কবিতা পোস্ট করেন দেবাংশু। সেই কবিতার তিনি শিরোনাম দেন ‘চপে ঢাকা পাড়া’। বলা বাহুল্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রস্তাবিত বিকল্প কর্মসংস্থান অর্থাৎ ‘চপ শিল্পের’ কথাই এই কবিতায় তুলে ধরতে দেখা যায় তাঁকে। পাশাপাশি ‘চপ বিক্রি’ প্রসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীকে কটাক্ষ করে বলা বিভিন্ন মন্তব্যের জবাবও এই কবিতায় দিতে দেখা যায় দেবাংশুকে।

তৃণমূল মুখপাত্রের দাবি, গরিব গুবদের অন্যতম মুখরোচক খাবার চপ নিয়ে ঠাট্টা করে বামেরা আসলে তাঁদের শ্ৰেণী রাজনীতির পরিপন্থী হয়ে উঠেছে। আর সেই কথা বোঝাতে গিয়ে যাদবপুরের মতো ‘এলিট’ বাম দূর্গের সাথে গোটা রাজ্যের তুলনা টেনেছেন তিনি। এই প্রসঙ্গে দেবাংশু লিখেছেন, “শ্ৰেণীর লড়াই বদলে গেছে, গ্রামের মাঠে অন্য সুর, কী আর বলি, রাজ্য জুড়ে নয়তো রে হায় যাদবপুর…”

পাশাপাশি রাজ্যের বিধানসভায় বামেদের শূন্য হওয়া নিয়েও কবিতায় কটাক্ষ ছুঁড়ে দিয়েছেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে ‘চপ-চটি’ ইত্যাদি ভাষায় আক্রমণ করার প্রতিবাদে বামেদের উদ্দেশে দেবাংশু লিখেছেন, “শূন্য হাতে ফিরব আবার, কাটাছেঁড়ায় মত্ত হব, চপ-চটিতে ঠাট্টা আবার, আমি তো সেই আমিই রব।”

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
নিজের লেখা নিজে লিখুন
Close
Close