রাজ্য

“করোনা চলে গেছে” বলা দিলীপ ঘোষ এবার নিজেই কোভিড আক্রান্ত, ভর্তি হাসপাতালে

মহানগর বার্তা ওয়েবডেস্কঃ করোনা চলে গেছে, তা সত্বেও দিদিমণি শুধু শুধু লকডাউন করে ঢং করছেন। গত মাসের ৯ তারিখে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে বিঁধে দিলীপ ঘোষের বক্তব্য ছিল এমনটাই। আর সেই ঘটনার প্রায় দেড় মাসের মাথায় নিজেই করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হলেন রাজ্য বিজেপির সভাপতি। শীর্ষ দপ্তরে মারণ ভাইরাসের হানায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে বিজেপির অন্দরমহলে।

 

শুক্রবার সন্ধ্যায় দিলীপ ঘোষকে সল্টলেকের আমরি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তবে তাঁর শারীরিক অবস্থা বিশেষ সংকটজনক নয় বলে জানানো হয়েছে হাসপাতাল সূত্রে। জানা গেছে,গত কয়েক দিন ধরেই জ্বরে ভুগছিলেন তিনি। তাই নিজের বাড়িতেই তিনি আইসোলেশনে চলে গিয়েছিলেন। এর মধ্যে তিনি করোনার পরীক্ষাও করান, কিন্তু প্রাথমিক ভাবে রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছিল। সর্দি, কাশি, জ্বর প্রভৃতি উপসর্গ ছিল তাঁর। শুক্রবার অবস্থার অবনতি হলে হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাঁকে।

 

মজার ব্যাপার হল, গত মাসেই হুগলির ধনেখালির একটি জনসভায় রাজ্যে এখনও লকডাউন চালিয়ে যাওয়ার জন্য মুখ্যমন্ত্রীকে কটাক্ষ করেছিলেন দিলীপ ঘোষ। গত মাসের ৭ ও ১১ তারিখ রাজ্যে লকডাউন ছিল। বিরোধী দল যাতে মিছিল মিটিং করতে না পারে, সেই উদ্দেশ্যেই লকডাউন চালিয়ে যাচ্ছে রাজ্য সরকার, এমনটাই দাবি ছিল তাঁর। তাই সরকারের সিদ্ধান্তকে অস্বীকার করে তিনি বলেছিলেন, “আমরা মিছিল করবোই।”

 

প্রসঙ্গত, কিছুদিন আগে রাজ্য বিজেপির যুব মোর্চার উদ্যোগে আয়োজিত নবান্ন অভিযানে যোগ দিয়েছিলেন দিলীপ ঘোষ। কিন্তু তারপর থেকে বিশেষ কোনো কর্মসূচিতে দেখা যায় নি তাঁকে। করোনার উপসর্গ থাকায় তিনি হোম আইসোলেশনে ছিলেন। রাতে অবশ্য আমরি সূত্রে জানানো হয়েছে, বিজেপির রাজ্য সভাপতি কোভিড পজিটিভ। তবে এখন তিনি ভালো আছেন। তাঁর কোনও কো-মরবিডিটি নেই। সন্ধ্যার পরে জ্বরও কমে গিয়েছে বলে হাসপাতালের তরফে জানানো হয়েছে। কিন্তু, চলে যাওয়া ভাইরাস কি তবে আবার ফিরে এল? এমনটাই প্রশ্ন উড়ে আসছে নেটিজেনদের রসিকমহল থেকে।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close