দেশ

ফের যুদ্ধ বিরতি লঙ্ঘন! পাকিস্তানের আক্রমণে শহীদ ভারতীয় জওয়ান

পাক সেনার সঙ্গে বিএসএফ-এর সংঘর্ষে ফের উত্তপ্ত হল কাশ্মীর। এদিন কাশ্মীরের সীমান্ত অঞ্চলে ফের যুদ্ধ বিরতি লঙ্ঘনের অভিযোগ উঠেছে পাকিস্তান সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে। কিছুদিন আগেই জঙ্গিদের সঙ্গে গুলির লড়াইয়ে প্রাণ গিয়েছিল ত্রিপুরার এক বাঙালি জওয়ানের। তার রেশ কাটতে না কাটতেই ফের গোলাগুলিতে রক্তাক্ত হল উপত্যাকা অঞ্চল।

জানা গেছে, শুক্রবার পাক সেনাদের সঙ্গে গুলির লড়াইয়ে প্রাণ হারিয়েছেন বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্স বা বিএসএফ-এর এক জওয়ান। বিএসএফ-এর আর্টিলারি বাহিনীতে সাব ইন্সপেক্টর পদে কর্মরত ছিলেন রাকেশ ডোভাল নামের ওই জওয়ান। এদিন দুপুর ১টা ১৫ মিনিট নাগাদ সীমান্তের ওপার থেকে গুলি এসে লাগে তাঁর গায়ে। বিএসএফ-এর সূত্রের খবরে জানা গেছে, মাথায় ওই গুলির আঘাতেই মৃত্যু হয়েছে জওয়ানের।

শুধুমাত্র রাকেশ ডোভাল নন, সীমান্ত পারের গুলির আঘাতে আহত হন আরো এক বিএসএফ কর্মী। বাসু রাজা নামের ওই কনস্টেবলের হাত ও গালে আঘাত লাগে। তবে তাঁর অবস্থা আপাতত স্থিতিশীল বলে জানা গেছে বিএসএফ সূত্রে। সেনার তরফে আরো খবর, পাকিস্তান সীমান্ত অঞ্চল থেকে গুলি এখনও থামেনি। পাল্টা জবাবও দেওয়া হচ্ছে ভারতের তরফে।

জানা গেছে, নিহত জওয়ান রাকেশ ডোভাল ছিলেন উত্তরাখণ্ডের বাসিন্দা। তাঁর মৃত্যুতে স্বভাবতই শোকের ছায়া নেমেছে সেনা শিবিরে। কিছুদিন আগেই মঙ্গলবার দক্ষিণ কাশ্মীরের সেপিয়ান জেলার কুটপোরা এলাকায় সেনার গুলিতে জখম হয় দুই জঙ্গি। বড়সড় নাশকতার ছক কষা হয়েছিল বলে খবর পেয়েছিল বিএসএফ। সেই ছক ভেস্তে দিতেই অভিযান চালানো হয়েছিল।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, কিছুদিন আগেই কাশ্মীরের কুপওয়ারা জেলার মাছিল সেক্টরে কর্মরত বিএসএফ কর্মী সুদীপ সরকার নিহত হন জঙ্গিদের সঙ্গে সংঘর্ষে। তার পরেই ফের আরো এক জওয়ানের মৃত্যু ঘটল উপত্যকায়।সব মিলিয়ে ফের উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে কাশ্মীরের সীমান্ত অঞ্চল।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
নিজের লেখা নিজে লিখুন
Close
Close