দেশরাজনীতি

‘ফেসবুকে হিংসা ছড়ায় বিজেপি’,তদন্তের আবেদন জানিয়ে জুকারবার্গকে চিঠি কংগ্রেসের

মহানগর বার্তা ওয়েবডেস্কঃ ফেসবুকের বিরুদ্ধে বিজেপির হয়ে পক্ষপাতের অভিযোগে সরব হতে দেখা গিয়েছিল জাতীয় কংগ্রেসকে। রাহুল গান্ধী সহ কংগ্রেসের বহু কর্মকর্তারাই এই অভিযোগে সুর চড়ান বিজেপির বিরুদ্ধে। অভিযোগ ছিল ভারতে রাজনৈতিক স্বার্থে ফেসবুকে বিদ্বেষমূলক এবং ভুয়ো খবর প্রচার করে ভারতীয় জনতা পার্টির বিভিন্ন সদস্যরা। আর নিজেদের ব্যবসায়িক স্বার্থের কারণেই সেই সমস্ত পোস্টের ক্ষেত্রে কোনোরূপ ব্যবস্থা গ্রহণ করেনা ফেসবুক।

গোটা অভিযোগের নেপথ্যে ছিল আমেরিকার সংবাদ মাধ্যম ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের একটি প্রতিবেদন। এবার সেই প্রতিবেদনকে সামনে রেখেই, এই প্রসঙ্গ উল্লেখ করে ফেসবুকের কর্ণধার মার্ক জুকেরবার্গকে চিঠি দেওয়া হলো ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেসের তরফে। চিঠিতে ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের প্রতিবেদনকে ভিত্তিহীন ভাবে না উড়িয়ে দিয়ে তদন্তের দাবি জানানো হয়েছে কংগ্রেসের তরফে। সেই সঙ্গে ফেসবুকের মূল অফিস থেকে ভারতীও ফেসবুক টিমের সদস্যদের উপর নজর রাখার কথাও উল্লেখ করা হয়। গোটা ঘটনার পূর্ণ তদন্তের দাবি জানিয়ে চিঠিতে এটাও বলা বলা হয় যে তদন্তে শেষ না হওয়া পর্যন্ত ভারতের ফেসবুক টিমের সদস্যদের পরিবর্তন করা হোক। যাতে তদন্তে স্বচ্ছতা বজায় থাকে।

 

প্রসঙ্গত,ফেসবুকের বিরুদ্ধে বিজেপিকে মদত দেওয়ার অভিযোগ অস্বীকার করেছে বিজেপির একাধিক মন্ত্রী। উল্টে রাহুলের টুইটের উত্তরে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ মনে করিয়ে দিয়েছেন কেমব্রিজ অ্যানালিটিকা ডেটা স্ক্যানডেলের কথা। বিজেপির অভিযোগ যে,সেই সময় নির্বাচনের আগে ফেসবুককে ভুলভাবে ব্যবহার করার অভিযোগ উঠেছিল কংগ্রেস শিবিরের বিরুদ্ধে।

অন্যদিকে ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের প্রতিবেদনকে হাতিয়ার করে ফেসবুকের বিরুদ্ধে এমন অভিযোগকে প্রাথমিকভাবে অস্বীকার করেছে ফেসবুক। এই বিষয়ে ফেসবুকের মুখপাত্র বলেন, ‘আমরা সেইসব বিদ্বেষমূলক ভাষণ বা কনটেন্টের উপর নিষেধআজ্ঞা জারি করি যার দ্বারা হিংসা ছড়াতে পারে। এটার জন্য বিশ্বজুড়ে একই নীতি কার্যকর করা হয়েছে ফেসবুকের তরফে। এবং সেটা মেনেই আমরা কাজ করে থাকি। ফলত এতে আমরা কোনও রাজনৈতিক দলের পক্ষপাত করি না। আমরা প্রতিনিয়ত এই বিষয়ে অডিট চালাই। তার ফলেই আরও স্বচ্ছতা ও সঠিক তথ্য প্রকাশের বিষয়ে অনেক দূর এগোতে সক্ষম হয়েছি আমরা।’

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close