দেশভাইরাল

করোনা রুখতে ইলেক্ট্র- ম্যাগনেটিক মাস্ক বানালো যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়ারা

মহানগর বার্তা ওয়েবডেস্ক : ক্রমশ যেভাবে বেড়ে চলেছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা তার ফলে বর্তমানে ভীত সন্ত্রস্ত গোটা ভারতবর্ষ। তবে সর্বসাধারণের এরম দুর্দিনের মধ্যেই পশ্চিমবঙ্গের যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় এবার বাজারে নিয়ে এলো এক ইলেকট্রিনিক মাস্ক। বাজারে চলতি সমস্ত মাস্কের তুলনায় একেবারেই ভিন্ন এই মাস্ক। জানা গিয়েছে, সংস্পর্শে থাকা যেকোনো মানুষের যেকোনো ধরনের ভাইরাসকে শরীরে প্রবেশ করার থেকে বাধা দেবে এই ইলেকট্রনিকস মাস্ক।

প্রসঙ্গত এই ইলেকট্রনিক্স মাস্ক প্রকল্পের সঙ্গে যুক্ত যাদবপুরের এক উচ্চআধিকারিকের মতে, “এই মাস্কের ডিজাইন তৈরী করেছে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ইন্সট্রুমেনটাল ডিপার্টমেন্ট। তবে মাস্কের এই ডিজাইন বা মডেল তৈরী হলেও একমাত্র সরকারের অনুমোদনের পরেই অধিক সংখ্যক পরিমাণে তৈরী করা হবে এই মাস্ক।”এই মাস্ক সম্পর্কিত বিষয়ে তাঁকে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি জানান , “এই মাস্কে একটি ইলেকট্রোম্যাগনেটিক ফিল্ড তৈরী করা হয়েছে যা সারস-২ এর মতো শক্তিশালী ভাইরাসের ক্ষেত্রেও অপ্রতিরোধ্য হিসেবে কাজ করবে। এছাড়াও এটিতে আলাদা করে চার্জ দেওয়ার কোনও প্রয়োজন নেই। এই সেল্ফ চার্জড মাস্ক।”

এই বিষয়ে যাদবপুরের প্রাক্তন ভাইস চ্যান্সেলর চীরঞ্জীব ভট্টাচার্য বলেছেন,”ইতিমধ্যেই এই মাস্কের ডিজাইন আমরা তৈরী করে ফেলেছি তবে তা শুধুমাত্রই ডেমো হিসেবে ব্যবহারের জন্য। এই মাস্ক বিপুল পরিমাণে তৈরীর ক্ষেত্রে আইএমসিআর মতো সংস্থার পক্ষ থেকে অনুমোদনের প্রয়োজন। অনুমোদন প্রাপ্তির পরেই এর দাম নির্ধারণ করে তবে এটি ওষুধের দোকান বিক্রয়ের জন্য পাঠানো হবে।” তবূ এই প্রথম নয় গত এপ্রিলে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের দুটি ছাত্র কোভিড-১৯ ঘিরেই এমন একটা যন্ত্র আবিষ্কার করেছিলো যার ফলে কোনো ব্যক্তির কাশি হলে এবং যদি তার শরীরে করোনা ভাইরাস থেকে থাকে তাহলে খুব সহজেই তা চিহ্নিত করতে পারবে সেই যন্ত্র।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close