দেশ

সম্পূর্ণ বিনামূল্যে করোনা টিকা দেওয়ার কথা ঘোষণা করল কেরলের বাম সরকার

মহানগরবার্তা ওয়েবডেস্ক: প্রায় বছর খানেক আগে চিনের উহান প্রদেশে প্রথম দেখা মিলেছিল করোনা ভাইরাসের। তারপর থেকে এখন পর্যন্ত বিশ্ব জুড়ে এই মারণ ভাইরাসের দাপট প্রাণ কেড়েছে বহু মানুষের। শুধু তাই নয়, মানুষের দৈনন্দিন জীবনের স্বাভাবিক ছন্দকেই এলোমেলো করে দিয়েছে করোনা ভাইরাস। ভাইরাসের প্রতিষেধক টিকা আবিষ্কারের চেষ্টায় নেমেছেন বিশ্বের তাবড় বিজ্ঞানীরা, কিন্তু এখনও পর্যন্ত বাজারে আসেনি কোনো টিকাই।

করোনা ভাইরাসের টিকা এখনও পর্যন্ত রয়েছে ট্রায়ালের পর্যায়ে। কিন্তু খুব শীঘ্রই তা বাজারে আসতে চলেছে, এমনটাই দাবি করা হয়েছে টিকা প্রস্তুতকারী সংস্থার তরফে। এমতাবস্থায় করোনার টিকা বাজারে এলে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে তা রাজ্যের মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়ার কথা ঘোষণা করল কেরালা সরকার।

এদিন কেরালার মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়ন সাংবাদিকদের বলেন, “ভ্যাকসিনের জন্য কারোর কাছ থেকে টাকা নেওয়া হবে না। এটাই কেরালা সরকারের অবস্থান।” বস্তুত এর আগে তামিলনাড়ু এবং মধ্যপ্রদেশ সরকারের তরফ থেকে বিনামূল্যে করোনা টিকা দেওয়ার কথা ঘোষণা করা হয়েছিল। এবার সেই পথেই হাঁটল কেরালার বাম সরকারও।

বর্তমানে ভারতে যে যে ভ্যাকসিনের ট্রায়াল চলছে তাদের মধ্যে অন্যতম হল সিরাম ইনস্টিটিউট নির্মিত অক্সফোর্ড ভ্যাকসিন, আমেরিকার ফাইজার ভ্যাকসিন এবং ভারত বায়োটেক নির্মিত ভ্যাকসিন। এই ৩ ভ্যাকসিনই ভারতের বাজারে আগামী বছর থেকে চালু হওয়ার প্রবল সম্ভাবনা রয়েছে। কেন্দ্র সরকার যত দ্রুত সম্ভব ভ্যাকসিন গুলি বাজারে চালু করার চেষ্টা চালাচ্ছে বলে জানা গেছে।

এদিন কেরালার মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়ন জানান, ভারতের বাজারে ভ্যাকসিন চালু হওয়ার পর রাজ্য প্রতি কি পরিমাণ ভ্যাকসিন বরাদ্দ করা হবে, সে বিষয়ে কোনো নির্দিষ্ট তথ্য এখনও পর্যন্ত কেন্দ্রের তরফ থেকে জানানো হয় নি। “কোভিড ১৯ আক্রান্তদের সংখ্যা কমছে। এটা খুবই স্বস্তির কথা। তবে স্থানীয় যে ভোটগ্রহণ পর্ব চলছে তাতে এই সংখ্যাটা আবার বেড়ে যাবে কিনা সেটাই এখন দেখার।”

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close