আন্তর্জাতিক

কুকুরই ভগবান! দীপাবলিতে প্রথা মেনে কুকুর পুজো করা হলো নেপালে

মহানগরবার্তা ওয়েবডেস্ক: বিশ্ব জুড়ে করোনা অতিমারীর আবহেই দেশে শুরু হয়েছে উৎসবের মরশুম। দিওয়ালি উপলক্ষ্যে কাশ্মীর থেকে কন্যাকুমারী, আলোর উৎসবে মেতেছেন আপামর দেশবাসী। করোনা পরিস্থিতিতে আতশবাজির উল্লাসে কিছুটা নিষেধাজ্ঞা জারি করা হলেও উৎসবের উন্মাদনা তাতে কিছু মাত্র কমেনি। তবে ভারতের বাইরে দিওয়ালির ছবিটা ঠিক কেমন? প্রতিবেশী দেশ গুলোতেও কি একই উন্মাদনায় পালিত হয় আলোর উৎসব?

উত্তর খুঁজতে গিয়ে সামনে আসে এক অভিনব তথ্য। পশ্চিমবঙ্গে পাঁচ দিন ব্যাপী দুর্গোৎসবের কথা সকলেরই জানা। তবে অনেকেই হয় তো জানেন না দিওয়ালিতেও পাঁচ দিন ব্যাপী উৎসব পালিত হয় ভারতেরই এক প্রতিবেশী দেশে। উত্তর সীমান্তের প্রতিবেশী নেপালে প্রায় পাঁচ দিন ধরে পালন করা হয় দিওয়ালি। শুধু তাই নয়, পাঁচ দিনের দ্বিতীয় দিনে এক অভিনব উৎসব পালন করা হয় নেপালের কাঠমান্ডু সহ একাধিক জায়গায়।

সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম এএনআই-এর একটি রিপোর্ট অনুযায়ী, দিওয়ালিতে কুকুরদের মহাধুমধামের সঙ্গে পুজো করা হয় নেপালে। এই উৎসবের নাম “কুকুর তিহার”। প্রতি বছর পাঁচ দিন ব্যাপী দিওয়ালির দ্বিতীয় দিনে অভিনব এই “কুকুর তিহার ” উৎসব পালন করেন নেপালের মানুষ। এই উৎসবে কুকুরদের পুজো করার পাশাপাশি নানা রকম খাবারও দেওয়া হয়ে থাকে বলে জানা গেছে। দীর্ঘদিন ধরেই নেপালে চলে আসছে এই উৎসবের রীতি।

জানা গেছে, মূলত কুকুর এবং মানুষের মধ্যেকার সম্পর্কের দৃঢ় বন্ধনই এই উৎসবের মূল ভিত্তি। এই বন্ধন আরো দৃঢ় করার বার্তাই দেওয়া হয় এই “কুকুর তিহার” উৎসবের মাধ্যমে। প্রতিবছরই নেপালের মানুষ ফুল মালা সহযোগে কুকুরদের সাজিয়ে তাদের খাবার খেতে দেন। রাস্তার কুকুর হোক কিংবা বাড়ির পোষা কুকুর, সকলের ক্ষেত্রেই একই নিয়ম পালন করা হয়।

দিওয়ালির উৎসবে ভারত জুড়ে আতশবাজির উল্লাসে মেতে ওঠেন জনগণ। আর তা করতে গিয়ে অনেক সময়ই কুকুর কিংবা অবলা প্রাণীদের কথা খেয়াল থাকে না কারোর। বাজির শব্দ বা আগুনে দিওয়ালির সময় ক-দিন আতঙ্কে দিন কাটে কুকুরদের। ভারতে যখন দিওয়ালির ছবিটা এমন, তখনই প্রতিবেশী নেপালে পুজো করা হয় কুকুরদের।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close