গ্রিন রুমবড়ো পর্দা

‘মুসলিম ছেলেকে বিয়ে করেন নি কেন?’ প্রশ্ন শুনে সপাট জবাব দিলেন নুসরাত

মহানগর বার্তা ডেস্ক : তিনি বিতর্ককে এড়িয়ে চলার চেষ্টা করলেও, বিতর্ক তাঁর পিছু ছাড়েনা। কখনও নিজের প্রেম কখনও নিজের বিয়ে একাধিক বিষয়ে বারংবার বির্তকে জড়িয়েছেন সাংসদ অভিনেত্রী নুসরাত জাহান(Nusrat Jahan)। সেসব নিয়ে কখনও আবার মুখও খোলেন তিনি। এবারও তাই করলেন। তাঁর ব্যক্তিগত বিষয়ে নাকগলানোর চেষ্টা করতেই তিনি রেয়াত করলেন না। সামাজিক মাধ্যমে নেটিজেনের এক প্রশ্নের উত্তরে কড়া কথা শোনাতে দেখা গেল তাঁকে।

রবিবার রাতে ইনস্টাগ্রামে অনুরাগীদের সঙ্গে আড্ডা দেন নুসরাত জাহান(Nusrat Jahan)। সেই আড্ডার হ্যাশট্যাগ ছিল ‘আস্ক মি অ্যানিথিং’ অর্থাৎ ‘আমাকে যেকোনো কিছু জিজ্ঞেস করুন’। ইনস্টাগ্রামে জনৈক নেটিজেন হঠাৎ করেই নুসরাতকে(Nusrat Jahan) প্রশ্ন করে বসেন, আপনি কেন মুসলিমকে বিয়ে করেননি? প্রশ্ন শুনেই মেজাজ হারালেন অভিনেত্রী। অভিনেত্রীর স্পষ্ট উত্তর, “তুমি কোন গ্রহের প্রাণী? কোন জগতে বাস করো, তুমি কি মানুষ?”

আরও পড়ুন:টাকা নিয়ে দেশের ক্ষতি নয়, মদের ব্র্যান্ডের ১০ কোটি টাকার বিজ্ঞাপনে ‘না’ আল্লু অর্জুনের

প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালের দিকে ভিক্টর ঘোষ নামে একজনকে বিয়ে করেছিলেন নুসরাত। সেই বিয়ের কথা তেমন কেউই জানতেন না। ২০১৯ সালের আইনিভাবে তাদের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়। পরে ২০১৯ সালে তুরস্কে গিয়ে নিখিল জৈনকে ধুমধাম করে বিয়ে করেন নুসরাত। আবার নিখিলের স্ত্রী থাকাকালীনই অভিনেতা যশ দাশগুপ্তের সঙ্গে পরকীয়া সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন নুসরাত। গত বছরের আগস্ট মাসে একটি পুত্র সন্তানের জন্ম দিয়েছেন অভিনেত্রী। এর কিছু সময় পরই কাজে ফেরেন নুসরাত। অল্প সময়ে বাড়তি ওজনও ঝরিয়ে স্লিম অ্যান্ড ট্রিম হয়ে ওঠেন। তবুও কটাক্ষ ও বিতর্ক যেন পিছু ছাড়েনি। একজন লেখেন, “আমাদের বসিরহাটের রাস্তায় জল জমে আছে। ৪-৫ বস্তা বালি নিয়ে আসবেন।” আরেকজন আবার বিদ্রূপের ছলে লিখেছেন, “এই না হলে সাংসদ। আপনাকে নিয়ে গর্ব হয় ম্যাডাম।”

আরও পড়ুন:বাঙালির বিশ্বজয়! সমুদ্র বিজ্ঞান নিয়ে গবেষণা করে স্বীকৃতি পেল কোয়েনা মুখোপাধ্যায়

সাম্প্রতিক সময়ে নুসরাতের(Nusrat Jahan) সিঁথিতে দেখা গেছে সিঁদুর। পূজা করা, মন্দিরে যাওয়া, এছাড়াও তার নানা কাজকর্মে বোঝা যায় যে, তিনি ধর্মে বিশ্বাসী নন। বিভিন্ন সাক্ষাৎকারেও অভিনেত্রী বলেছেন যে, তার কাছে মনুষ্যত্বই একমাত্র ধর্ম।

সবার খবর সঠিক খবর পড়তে চোখ রাখুন মহানগর বার্তায়

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
নিজের লেখা নিজে লিখুন
Close
Close