দেশ

লকডাউনের পর বন্ধ স্কুল! বস্তির গরীব বাচ্চাদের পড়াতে এগিয়ে এলেন পুলিশরা

মহানগরবার্তা ওয়েবডেস্ক: একুশ শতকের হিংসা, হানাহানি ও স্বার্থপরতার মাঝেও যে মানুষের মন থেকে মানবিকতা একেবারে মুছে যায় নি আরো একবার সামনে এল সেই দৃষ্টান্ত। আর দেশের নানা প্রান্তের পুলিশ ডিপার্টমেন্টের দায়িত্ব কর্তব্য সম্বন্ধে যে প্রশ্ন ওঠে মাঝে মাঝেই, এদিনের ঘটনা আরো একবার তাকে মিথ্যে প্রমাণিত করল। গরীব ছেলেমেয়েদের লেখাপড়া শেখানোর উদ্যোগ নিয়ে নজির গড়ল মহারাষ্ট্র পুলিশ প্রশাসন।

মহারাষ্ট্রের ঔরঙ্গাবাদের একটি থানা বস্তির গরীব ছেলেমেয়েদের লেখাপড়া শেখানোর উদ্যোগ গ্রহণ করেছে, এমনটাই জানা গেছে সূত্রের খবরে। থানা চত্বরেই বাচ্চাদের এই পড়াশোনা চলছে। থানার উদ্যোগে ওই ক্লাস গুলিতে বস্তির ছেলে মেয়েদের মূলত ইংরাজি শেখানো হচ্ছে।

জানা গেছে ঔরঙ্গাবাদের ওই থানার নাম পুন্ডলিক পুলিশ স্টেশন। সামাজিক পুলিশিং প্রোগ্রামের অন্তর্গত একটি কর্মসূচী থেকেই এই অভিনব উদ্যোগ নিয়েছেন ওই থানার পুলিশরা। তাঁদের মহৎ উদ্দেশ্যকে কুর্নিশ জানিয়েছেন সকলেই।

সর্বভারতীয় সংবাদ মাধ্যমের খবর অনুযায়ী, পুন্ডলিক পুলিশ স্টেশন সংলগ্ন এলাকায় যে বস্তির গুলি রয়েছে সেখানকার বাচ্চাদের ইংরাজি আর অঙ্ক শেখাচ্ছেন পুলিশরা। পুলিশ হিসেবে নিজেদের দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি এই কাজ করছেন তাঁরা। গরীব ছেলে মেয়েরা ইংরাজিতে পারদর্শী হয়ে একদিন জীবনে সফল হয়ে উঠবে, বেড়িয়ে আসবে বস্তির অন্ধকার থেকে, এ বিষয়ে আশাবাদী পুন্ডলিক থানার পুলিশ। বাচ্চাদের ইংরাজি ক্লাস নেওয়ার জন্য নিজেদের খরচে একজন শিক্ষকও নিয়োগ করেছেন তাঁরা, জানা গেছে বিশেষ সূত্রের খবরে। একই সঙ্গে চলছে অঙ্কের ক্লাসও।

জানা গেছে এই টিউশন ক্লাস চালু হয়েছে মাত্র ৪ দিন আগে। এখনও পর্যন্ত মোট ১৪ জন পড়ুয়া পুলিশের এই ক্লাসে লেখাপড়া শিখতে আসছে। পুন্ডলিক পুলিশ স্টেশনের অ্যাসিস্ট্যান্ট পুলিশ ইন্সপেক্টর ঘনশ্যাম সোনাওয়ানে এ বিষয়ে জানিয়েছেন, “করোনা আবহে বাচ্চারা স্কুল যেতে পারছে না। অনলাইনে ক্লাস করার সুবিধা বা পরিষেবা বেশিরভাগের কাছেই নেই। পরিস্থিতি বিবেচনা করে আমরা ওদের ইংরাজি আর অঙ্কের ক্লাস নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।” যে ১৪ জন বাচ্চা এখানে ক্লাস করছে তাদের মধ্যে ৬ জন কখনোই অনলাইনে ক্লাস করেনি। স্থানীয় একটি স্কুলেল অবসরপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক এসপি জওয়ালকার বাচ্চাদের এই ক্লাস নেওয়ার ব্যাপারে নিঃস্বার্থ ভাবে এগিয়ে এসেছেন।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close