রাজ্যদেশরাজনীতি

কলকাতা লন্ডন নয়, লন্ঠন হাতে দাঁড়িয়ে আছে!এবার ‘পিসিকে বলো’ করতে হবে: রাহুল সিনহা

মহানগর বার্তা ওয়েবডেস্ক: ভারতবর্ষ গণতান্ত্রিক দেশ হলেও পশ্চিমবঙ্গে তার কোনো চিহ্ন নেই। এই কারণ নিয়েই বিজেপির কেন্দ্রীয় সম্পাদক রাহুল সিনহা র সাথে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারের বিবাদ বাধে। তিনি জানান, ১৫ অগস্ট কার্যকর্তারা বিজেপির শহিদদের পরিবারের বাড়ি যাবেন। বিপ্লবীদের যেমন স্মরণ করা হয়, বিজেপির ৯৮ জন শহিদদের ঠিক তেমন ভাবে স্মরণ করা হবে।

প্রসঙ্গত, রাজ্যের বুথে ধর্না কর্মসূচি র জন্য আগামী ১৬ অগস্ট বিজেপি ডাক দিয়েছে । রাহুল সিনহার বক্তব্যে জানা যায় , পশ্চিমবঙ্গে গণতন্ত্রকে সম্পূর্ণ হত্যা করা হয়েছে।এখানে মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকার লক্ষ্য করা যায় না। তিনি আরো অভিযোগ জানান, বিরোধী রাজনৈতিক দলের পক্ষে কোনও কর্মসূচি গ্রহণ করা সম্ভব হচ্ছে না । এমনকী সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমেও তারা মতামত জনগণের সামনে তুলে ধরতে পারছে না।

‘আমার পরিবার, বিজেপি পরিবারে’ এরকমই সাড়া পাওয়া গিয়েছে- এমনটাই সাড়া পাওয়া গিয়েছে এই বিজেপি নেতার সুরে। প্রায় সব সম্প্রদায়ের মানুষ বিজেপির এই কর্মসূচিতে যোগদান করেছে। সাড়ে ৩ লক্ষের কাছাকাছি বিজেপির নতুন সদস্যপদ তৈরির টার্গেট নেওয়া হয়েছে বিজেপির তরফে।

এদিন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে কটাক্ষ করে রাহুল বলেন, এখন আর ‘দিদিকে বলো’ চলবে না, এবার থেকে ‘পিসিকে বলো’ বলতে হবে। বিরোধী রাজনৈতিক দল হয়েও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে আক্রমণ করে পরামর্শ দিল বিজেপি নেতা। তিনি আরো কটাক্ষ করে বলেন মার্কেটে একবার ‘ পিসিকে বলো’ করে টেস্ট করে দেখতে পারে তৃণমূল। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দিদিকে বলো কর্মসূচি না চলায় মুখ্যমন্ত্রী কবিতা লিখছেন।

রাহুল আরও আক্রমণ করে বলেন, মুখ্যমন্ত্রী কলকাতাকে লন্ডন তৈরি করবে দাবি জানিয়েছিলেন। কিন্তু এখন তিনি নিজেই কলকাতার হাতে লন্ঠন দাঁড় করিয়ে দিয়েছে। শুধু তাই নয় ,২০২১ সালে তিনি বোধহয় লন্ডন চলে যাবেন তার পরিকলপনা করে কবিতা লিখছেন মুখ্যমন্ত্রী।

লকডাউন নিয়েও রাহুলের তোপ,একবার নয় এই নিয়ে ছয় বার লকডাউনের তারিখ পরিবর্তন করা হল । পাঁচ দিন ব্যাঙ্ক বন্ধ থাকবে এটা জেনে সব কাজ করা উচিত ছিল। এমনকি তৃণমূল সরকারকে ‘ অপদার্থ সরকার ‘ বলে আক্রমণ করেছেন তিনি।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close