দেশ

ফের ধর্মীয় হিংসা, মুসলিম ধর্মগুরুর কার্টুন দেখানোয় শিক্ষকের মুণ্ডু কাটলো জঙ্গিরা

মহানগর বার্তা ওয়েবডেস্কঃ ফের ধর্মীয় প্রতিহিংসা এবং নৃশংস জঙ্গিবাদের সাক্ষী থাকল ফ্রান্স। ক্লাসে ইসলাম ধর্মগুরুর একটি কার্টুন দেখানোয় চরম শাস্তি পেতে হল এক ফরাসি শিক্ষককে। স্কুল চত্বরের বাইরে তাঁর মাথা কেটে নিল জঙ্গিরা।

ঘটনাটি ঘটেছে ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিস শহর থেকে ৩০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত একটি স্কুল চত্বরের সামনে। জানা গেছে, শুক্রবার স্থানীয় সময় বিকেল ৫টার সময়। স্কুল থেকে বেরিয়ে বাড়ি ফিরছিলেন ওই শিক্ষক। তখনই কিছু আততায়ী তাঁর উপর হামলা চালায়। শিক্ষকের বিস্তারিত পরিচয় এখনও জানা যায় নি।

পুলিশ সূত্রে খবর, শিক্ষকের উপর হামলার আগে আততায়ীকে বার বার বলতে শোনা গিয়েছিল ‘আল্লাহ আকবর’ । এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার সন্দেহে ইতিমধ্যে চার জনকে গ্রেফতার করেছে ফ্রান্সের পুলিশ। জানা গেছে, ধৃতদের মধ্যে একজনের বয়স ১৮ বছরেরও কম।

মূলত মুসলিম ধর্মগুরুকে নিয়ে নিজের মত প্রকাশ করার জন্যেই ইসলামীয় জিহাদের বলি হয়েছেন ওই ফরাসি শিক্ষক, এমনটাই মনে করছে পুলিশ।ওই স্কুলের পড়ুয়াদের অভিভাবকদের বক্তব্য অনুযায়ী, ওই শিক্ষক ছিলেন মুক্ত চিন্তার মানুষ। কোনও ধর্মের প্রতিই তাঁর বিশেষ আক্রোশ বা পক্ষপাতীত্ব ছিল না। তিনি শুধু নিজের মতামত ছাত্র ছাত্রীদের কাছে প্রকাশ করতেন। ঘটনার দিন, ক্লাসে ছাত্রদের মুসলিম ধর্মগুরু মহম্মদের কার্টুন দেখিয়ে নিজের বক্তব্য রাখছিলেন শিক্ষক। তবে তার আগে ক্লাসের মুসলিম ছাত্রদের বেরিয়ে যেতে বলেছিলেন তিনি। শিক্ষক বলেছিলেন, “আমি কারও মনে আঘাত দিতে চাই না। সত্যিটা শুধু তুলে ধরব। আমার মুসলিম ছেলেমেয়েরা, তোমরা কিছুক্ষণের জন্য বাইরে যাও।”সেদিনই স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে আক্রমণ করা হয় শিক্ষককে। ঘটনার পিছনে অন্য কোনো পুরোনো আক্রোশ আছে কিনা, তাও খতিয়ে দেখছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, বছর পাঁচেক আগে ২০১৫ সালে ফরাসি কার্টুন পত্রিকা শার্লি এবদো-র অফিসে মৃত্যুহানা দিয়েছিল একদল জঙ্গি। নিয়মিত মহম্মদ বা ইসলাম ধর্ম ইত্যাদি নিয়ে তীব্র ব্যাঙ্গাত্মক কার্টুন প্রকাশই ওই হামলার পিছনে মূল কারণ ছিল বলে মনে করা হয়। নিজেদের আলকায়দর ইয়েমেন শাখার জঙ্গি বলে পরিচয় দিয়েছিল জঙ্গিরা। তাদের গুলিতে ঝাঁঝরা হয়ে যান পত্রিকার ১২ জন শিল্পী ও কর্মী। তার তিন দিনের মধ্যে ফের হামলা চালিয়ে আরও পাঁচ জনকে হত্যা করে জঙ্গিরা। তারপর থেকে একাধিক জঙ্গি সক্রিয়তার সাক্ষী থেকেছে ফ্রান্স।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close