মহানগররাজনীতিরাজ্য

২৩ শে হাফ, ২৪ শে সাফ, ২৬ শে নবান্ন থেকে ঝাঁপ : সৃজন

মহানগর বার্তা ডেস্ক : এক মাস আগে কর্মসূচি ঘোষণা করেও পুলিশের অনুমতি পাননি বাম ছাত্র-যুবদের ইনসাফ সভা । কিন্তু ঘোষিত কর্মসূচি পুলিশ ও প্রশাসনিক বাধা উপেক্ষা করেই হবে বলে জানায় বাম ছাত্র-যুব নেতারা।সেইমতো আজ আয়োজিত ইনসাফ সভায়
প্রধান বক্তা হিসেবে রয়েছেন সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক সিপিএম তথা ডিওয়াইএফআইয়ের প্রাক্তন সাধারণ সম্পাদক মহম্মদ সেলিম । তাঁর আগে প্রয়াত ছাত্র নেতা আনিস খানের বাবা সালেম খান বক্তব্য রাখবেন । এছাড়াও, মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায়, প্রতিকুর রহমান ও ধ্রুবজ্যোতি সাহারাও উদীপ্ত করবেন বাম কর্মী সমর্থকদের৷

ইতিমধ্যেই, বামেদের ইনসাফ কর্মসূচিতে উপস্থিত হয়েছেন এই প্রজন্মের অন্যতম পরিচিত বাম নেতা সৃজন ভট্টাচার্য। ইনসাফ মঞ্চ থেকে তিনি রীতিমত হুংকার ছাড়লেন রাজ্যের তৃণমূল সরকারের বিরুদ্ধে। সভায় আগত ছাত্র যুবদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আর কিছুদিনের মধ্যেই রাজ্য পতন হবে তৃণমূল সরকারের। তার ঝাঁঝালো বক্তৃতার মাধ্যমে তীব্র আক্রমণ করেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। সৃজন বলেন,২৩ শে হাফ, ২৪ শে সাফ, ২৬ শে নবান্ন থেকে ঝাঁপ। তার এই বক্তব্যের সাথে সাথে রীতিমতো হুংকার দিতেই শুরু করেন বাম ছাত্র যুবরা।

আনিস খান, মইদুল মিদ্দা, সুদীপ্ত গুপ্ত, স্বপন কোলে ও সাইফুদ্দিনের বিচার চেয়ে পথে নেমেছে সিপিএম-এর ছাত্র-যুব সংগঠন এসএফআই ও ডিওয়াইএফআই। এই সভায় যুবদের উপস্থিতিকে প্রাধান্য দেওয়া হচ্ছে। অর্থাৎ সভার সাফল্যের থেকেও বেশি রাজ্যের যুব সম্প্রদায়কে সংগঠিত করাই মূল লক্ষ্য বামেদের। সব মিলিয়ে, যুবশক্তিতে শান দিয়ে পঞ্চায়েত নির্বাচনে সাফল্যের আশাতেই যে ওয়াই চ্যানেলে আজ বামেদের ইনসাফ সভা আয়োজিত হয়েছে একথা বলাই বাহুল্য।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
নিজের লেখা নিজে লিখুন
Close
Close