fff
টেকনলজি

Whatsapp নিয়ে এল নতুন ফিচার, কে কখন বেড়িয়ে যাচ্ছে গ্ৰুপ থেকে দেখতে পারবেন আপনিও

আবার নতুন ফিচার্স নিয়ে এল হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp)। নতুন আপডেটের মাধ্যমে এই ফিচার্স (WhatsApp features) গ্রুপ অ্যাডমিনদের একাধিকত্ব কিছুটা খর্ব করার লক্ষ্যেই নিয়ে আসা হয়েছে। তবে এতে হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp) গ্রুপের অ্যাডমিনদের ক্ষমতা আগের মতোই থাকবে, কিন্তু তাঁরা কখন কাকে গ্রুপ থেকে বের করে দিচ্ছেন তার যাবতীয় রেকর্ড গ্রুপের বাকিরা এবার থেকে দেখতে পাবেন। শত চেষ্টা করলেও অ্যাডমিনরা সেই তথ্য ঢাকতে পারবেন না।

বৃহস্পতিবার নতুন আপডেটের মাধ্যমে হোয়াটসঅ্যাপের (WhatsApp) এই ফিচার্স এসেছে। এতদিন কেউ হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp) গ্রুপ ছেড়ে বেরিয়ে গেলে বা অ্যাডমিনরা কাউকে গ্রুপ থেকে বার করে দিলে তা গ্রুপের চ্যাট বক্সেই দেখাতো। অনেক ক্ষেত্রেই দেখা যেত অ্যাডমিনরা গ্রুপ চালানোর ক্ষেত্রে গাজোয়ারি করছেন। তাঁরা কখন কাকে গ্রুপ থেকে বার করে দিচ্ছেন সেটা চ্যাট বক্সে দেখা গেলেও, ধরুন গত এক মাসে কতজনকে বার করা হয়েছে তা খুঁজে বের করা বেশ কঠিন।

তবেই নতুন আপডেটের ফলে কেউ গ্রুপ ছেড়ে বেরিয়ে গেলে বা অ্যাডমিন কাউকে বের করে দিলে তা আর গ্রুপের চ্যাটবক্সে দেখাবে না। গ্রুপে থেকে যাওয়া বাকি সদস্যদের কাছে এই নিয়ে কোন‌ও নোটিফিকেশনও আসবে না। এটা দেখে মনে হতে পারে এতে আর অ্যাডমিনদের একাধিপত্য কমল ক‌ই, বরং আর‌ও তো সুবিধা হয়ে গেল। কিন্তু না। এবার থেকে গ্রুপ ইনফোতে শেষ ৬০ দিনে কারা কারা গ্রুপ ছেড়ে, মানে লেফট করে গেছে বা কাদের রিমুভ করা হয়েছে তার আলাদা একটা লিস্ট বা তালিকা করা থাকবে। এই তালিকা গ্রুপে থাকা সকলেই দেখতে পাবেন। এটা কোনভাবেই বাকিদের থেকে আড়াল করতে পারবেন না অ্যাডমিনরা।

তবে অ্যাডমিনদের চ্যাট বক্সে আগের মতোই কেউ গ্রুপ থেকে লেফট করলে বা কাউকে রিমুভ করা হলে সেই নোটিফিকেশন ভেসে উঠবে। কিন্তু হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের যারা অ্যাডমিন নন, শুধুই গ্রুপ মেম্বার তাঁদের ক্ষেত্রে এটা আর হবে না। কোন‌ও গ্রুপের ইনার ডেমোক্রেসি এতে অনেক ভালোভাবে রক্ষা করা সম্ভব হবে বলে মনে করছেন সাইবার বিশেষজ্ঞরা। বিশেষ করে হঠাৎ যদি গ্রুপ ছাড়ার হার বেড়ে যায় বা অ্যাডমিনরা যদি গণহারে কাউকে রিমুভ করতে শুরু করে, তখন ইনফোতে থাকা ডেটা তুলে ধরে এই নিয়ে আলোচনা করার সুযোগ থেকে যাচ্ছে।

তবে এই আপডেট আপাতত সব হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp) ব্যবহারকারী পাবেন না। আইওএস প্ল্যাটফর্ম, অর্থাৎ যারা অ্যাপেলের ডিভাইস (I Phone) ব্যবহার করেন তাদের জন্যই এই আপডেট আনা হয়েছে। বৃহস্পতিবার আইওএস বেসড বিটা ২২.১৬.০.৭৫ আপডেটটি আনা হয়। তবে অ্যাপেল ডিভাইস ব্যবহারকারী সকলেই যে এই আপডেটের সুবিধা পাচ্ছেন এমনটা নয়। আপাতত প্রাথমিকভাবে ios platform এর কিছু হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp) ব্যবহারকারীকে এই আপডেট দেওয়া হয়েছে টেস্টিং এর জন্য। এতে হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp) ব্যবহার আরও সুবিধাজনক হচ্ছে কিনা তা দেখতে চাইছে মেটা করপোরেশন, যারা হোয়াটসঅ্যাপের মালিক।

আশা করা হচ্ছে এই আপডেটের ফলে হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp) গ্রুপের পারফরম্যান্স আর‌ও ভালো হবে। এতে বিশেষ কোনও অসুবিধে না হলে আগামী সপ্তাহের মধ্যেই আইওএস প্লাটফর্মের হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারকারী প্রত্যেকেই এই আপডেটটি পেয়ে যাবেন। তবে এটি অ্যান্ড্রয়েড (Android) ফোনে এখনই আসবে কিনা সেই বিষয়ে কিছু জানা যায়নি।

ঘটনা হল অ্যান্ড্রয়েড ফোনে হোয়াটসঅ্যাপের (WhatsApp) সাম্প্রতিক আপডেটের ফলে গ্রুপ অ্যাডমিনরা প্রয়োজন মনে করলে যে কারোর চ্যাট ডিলিট করতে পারছেন। ভারত সহ বেশ কিছু দেশে স্পর্শকাতর ও সাম্প্রদায়িক উস্কানিমূলক তথ্য আদান-প্রদানে নিষেধাজ্ঞা আছে। কোন‌ও হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp) গ্রুপে যদি দেশ বিরোধী এবং দাঙ্গায় উস্কানিমূলক তথ্য আদান-প্রদান হয় তবে যিনি তথ্য আদান-প্রদান করছেন তাঁর পাশাপাশি গ্রুপ অ্যাডমিনদেরও দায়ী করার আইন বেশ কিছু আগে চালু হয়েছে। এতে অ্যাডমিনদের বিপদ যে বেড়েছে তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।

কিন্তু অ্যান্ড্রয়েড ফোনে সাম্প্রতিক আপডেটের ফলে কোন‌ও গ্রুপে যদি অবাঞ্ছিত পোস্ট কোন‌ও মেম্বার পাঠিয়ে দেন, অ্যাডমিনরা চাইলে সঙ্গে সঙ্গে সেই পোস্ট ডিলিট করে দিতে পারবেন। এর ফলে বাকি মেম্বাররা একটা বাবল মতো দেখতে পান, যা বোঝায় অ্যাডমিন কোন‌ও এক গ্রুপ মেম্বারের পোস্ট ডিলিট করেছেন। কিন্তু কী পোস্ট ডিলিট করেছেন তা গ্রুপ মেম্বাররা দেখতে পায় না।

অ্যান্ড্রয়েড প্ল্যাটফর্ম ব্যবহারকারীরা হোয়াটসঅ্যাপের (WhatsApp) এই ফিচারের সুবিধা পেলেও তাঁরা গ্রুপ থেকে লেফট হয়ে যাওয়া বা রিমুভ করাদের তালিকায় এক্ষুণি দেখতে পাচ্ছেন না। যদিও অভিযোগ উঠেছে অ্যান্ড্রয়েড প্লাটফর্মে গ্রুপ অ্যাডমিনদের যে কারোর পোস্ট ডিলিটের ক্ষমতা দেওয়ায় তা অপব্যবহার শুরু হয়েছে। অনেক সময়ই ব্যক্তিগত পছন্দ-অপছন্দের উপর নির্ভর করে গ্রুপ অ্যাডমিনরা গ্রুপ মেম্বারদের পোস্ট যখন তখন ডিলিট করে দিচ্ছেন। ফলে গ্রুপের বাকিরা আর সেই পোস্ট দেখতে পাচ্ছেন না।

এতে গ্রুপের ইনার ডেমোক্রেসির ক্ষতি হচ্ছে বলেই মনে করা হচ্ছে। তবে অ্যান্ড্রয়েড প্লাটফর্মেও আইওএস প্ল্যাটফর্মের মতো আপডেট আনার কাজ হোয়াটসঅ্যাপ চালাচ্ছে বলে জানা গিয়েছে।

যদিও অনেক হোয়াটসঅ্যাপ (WhatsApp) ইউজারই সাম্প্রতিক অভিযোগ করেছেন, মোবাইলে বিশেষ সমস্যা না হলেও ল্যাপটপ বা ডেক্সটপ থেকে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারের ক্ষেত্রে সমস্যা অনেক বেড়েছে। শেষ ডেক্সটপ ভার্সন আপডেটের ফলে অনেক সময়‌ই টেক্সট বা অ্যাটাচ ফাইল মিসিং হয়ে যাচ্ছে। অথচ ফোন থেকে খুললে দেখা যাচ্ছে সেটা দিব্যি আছে। পাশাপাশি ডেক্সটপ থেকে হোয়াটসআপ কানেক্ট হওয়ার ক্ষেত্রেও প্রচণ্ড সমস্যা হচ্ছে বলে অভিযোগ। যদিও এই নিয়ে হোয়াটসঅ্যাপ বা মালিক মেটা কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে নির্দিষ্ট কিছু জানানো হয়নি। উল্লেখ্য অফিশিয়াল কাজে হোয়াটসঅ্যাপের ব্যবহার আগের থেকে অনেক বেড়ে গিয়েছে। ফলে প্রতিদিন কয়েক কোটি ইউজার ল্যাপটপ বা ডেক্সটপ থেকে হোয়াটসঅ্যাপ খোলেন। তাঁরা সকলেই এই সমস্যার মুখে পড়ছেন বলে খবর।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
Close
Close

Adblock Detected

Please Disable your ADBlocker!